বরিশালে ট্যাঙ্কারে বিস্ফোরণ : দগ্ধ একজনের মৃত্যু

Print Friendly

বরিশালে কীর্তনখোলা নদীতে তেলবাহী ট্যাঙ্কারের ইঞ্জিনরুমে বিস্ফোরণে দগ্ধ ৪ জনের একজন হুমায়ুন কবির (৩৪) ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন। আজ বুধবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে তার মৃত্যু হয়।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইউনিটের আবাসিক চিকিৎসক পার্থ শঙ্কর পাল জানান, হুমায়ুন কবিরের শরীরে ৯০ শতাংশের বেশি দগ্ধ ছিল।

গত ১৮ ফেব্রুয়ারি ওই দুর্ঘটনায় দগ্ধ আরো দু’জন ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

চট্টগ্রাম থেকে সাড়ে ৯ লাখ লিটার ডিজেল ও পেট্রোল নিয়ে বরিশালে যমুনা অয়েলের ডিপোতে যাচ্ছিল এমটি অ্যাঙ্কর এস নামের ট্যাঙ্কারটি। সেই রাতে বরিশালের চাঁনমারী খেয়াঘাটে ইঞ্জিনরুমে বিকট শব্দে বিস্ফোরণের পর জাহাজে আগুন ধরে যায়।

ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা আগুন নিভিয়ে ফেলায় আরো বড় ধরনের বিপদ এড়ানো গেলেও ৪ জন দগ্ধ হন।

তাদের মধ্যে ট্যাঙ্কারের লস্কর আবু সুফিয়ানকে ভর্তি করা হয় বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে। আর গুরুতর দগ্ধ হুমায়ুন কবির, শহীদুল ও নাজমুলকে পাঠানো হয় ঢাকায়।

চিকিৎসাধীন শহীদুলের শরীরের ৫০ শতাংশ এবং নাজমুলের ৮০ শতাংশের বেশি আগুনে পুড়ে গেছে।